বুধবার, ২২ মে ২০২৪, ০৮:১৪ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
দেশ ও জনগণের কল্যাণে কাজ করুন: বৌদ্ধ নেতাদের রাষ্ট্রপতি সাংবাদিকরা সহায়তা করলে আদালতে মামলা কমবে : প্রধান বিচারপতি গণতন্ত্রের জন্য যে দেশ স্বাধীন হয়েছে, সে দেশে এখন আর গণতন্ত্র নেই : শামসুজ্জামান দুদু লু এলেন, ভাবলাম সম্পর্ক ভালো করতে চায় কিন্তু নিশিরাতে স্যাংশন দিলো: কাদের ১ মিনিটের ‘ঝড়’ তুললেন মাহি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচের আম্পায়ার বাংলাদেশি সৈকত অবাধ্য পর্যটক সামলাতে দেওয়াল তুলছে জাপান হিমালয়সহ পাহাড়-পর্বত রক্ষায় ঐক্যবদ্ধ হতে হবে: পরিবেশমন্ত্রী প্রধানমন্ত্রীর প্রতিশ্রুত স্মার্ট বাংলাদেশ গঠনে কারিগরি শিক্ষার বিকল্প নেই : স্পিকার নির্বাচনে জিতে দুধ দিয়ে গোসল করলেন চেয়ারম্যান!

হাত স্যানিটাইজ করে ‘ঘুষ নেয়া’ সেই ওসি বদলি

রিপোর্টারের নাম
আপডেট : শুক্রবার, ১৪ আগস্ট, ২০২০
হাত স্যানিটাইজ করে 'ঘুষ নেয়া' সেই ওসি বদলি
ওসির ফাইল ছবি

ঘুষের টাকা নিয়েছিলেন হাত স্যানিটাইজ করে। সেই ঘুষ নেয়ার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ার পর লালমনিরহাট সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহফুজ আলমকে বদলি করা হয়েছে।

তাকে ঢাকা ট্যুরিস্ট পুলিশে সংযুক্ত করা হয়েছে। পাশাপাশি ঘুষ নেয়ার অভিযোগ তদন্তে জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে।

আরও পড়ুন : টেকনাফে চাঁদাবাজির রাজত্ব কায়েম করেছিলেন পরিদর্শক লিয়াকত

বুধবার (১৪ আগস্ট) তাকে বদলি করা হয়। লালমনিরহাটের পুলিশ সুপার আবিদা সুলতানা সংবাদমাধ্যমকে জানান, সদর থানার ওসি মাহফুজ আলমকে নিয়ে ঘুষ গ্রহণের অভিযোগ সংক্রান্ত একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এবং মিডিয়ায় প্রকাশ হওয়ার প্রেক্ষাপটে বিষয়টি খতিয়ে দেখে প্রতিবেদন দেওয়ার জন্য অতিরিক্ত পুলিশ সুপারকে প্রধান করে তিন সদস্যের একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, প্রশাসনিক কারণে পুলিশের অতিরিক্ত আইজিপি (প্রশাসন) মঈনুর রহমান চৌধুরী ওসি মাহফুজ আলমকে ঢাকা ট্যুরিস্ট পুলিশে পরিদর্শক হিসেবে যোগদানের জন্য একটি চিঠিতে গত বুধবার স্বাক্ষর করেছেন।

 

 

বিষয়টি কার্যকর করতে রংপুর ডিআইজি ও লালমনিরহাট পুলিশ সুপারকে পাঠানো হয়। পরদিন রাতে সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) এরশাদুল আলমকে ওসির দায়িত্ব বুঝিয়ে দেওয়া হয়।

তবে এখনো মাহফুজ আলম লালমনিরহাট ত্যাগ করেননি বলে জানা গেছে।

তবে হাত স্যানিটাইজ করে ঘুষ নেয়ার ব্যাপারে জিজ্ঞাসা করা হলে ওসি মাহফুজ আলম বলেন, আমি মাঝেমধ্যেই হাত স্যানিটাইজ করি। কিন্তু ঘুষ নেয়ার অভিযোগ মিথ্যা। একটি কুচক্রী মহল আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করে ওই গুজব ছড়িয়েছে।

সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) এরশাদুল আলম বলেন, বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে আমাকে ওসির দায়িত্ব বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে। যতদিন এই থানায় নতুন একজন ওসি এসে যোগদান না করবেন, তত দিন আমি আমার পদসহ ওসির দায়িত্ব পালন করবো।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরো সংবাদ

আবহাওয়া