মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ০৯:৩৭ অপরাহ্ন

বান্দরবানের ঘটনায় কঠোর অবস্থানে যাবে সরকার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

বান্দরবান জেলা প্রতিনিধি
আপডেট : শনিবার, ৬ এপ্রিল, ২০২৪
বান্দরবানের ঘটনায় কঠোর অবস্থানে যাবে সরকার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

বান্দরবান জেলা প্রতিনিধি : 

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, ঘটনার বিষয়ে কঠোর অবস্থানে যাব। কোনোক্রমে আইনশৃঙ্খলা ভঙ্গ করতে দেব না।

শনিবার (৬ এপ্রিল) রুমায় সোনালী ব্যাংক পরিদর্শন শেষে রুমা উপজেলা কমপ্লেক্সে সাংবাদিকদের সামনে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, আজ থেকে ব্যাংকে ডাকাতি, অস্ত্র লুটের ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে এবং সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে যৌথ বাহিনীর সাঁড়াশি অভিযান পরিচালনা করা হবে।

আসাদুজ্জামান খান বলেন, পাহাড় শান্তিপ্রিয় এলাকা। এখানে শান্তির সুবাতাস বইত। এখানে কোনো অশান্তি হোক তা চাই না। যে ঘটনাই ঘটুক, তদন্ত করে দেশের আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে। কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না।

গোয়েন্দারা ব্যর্থ কি না এমন প্রশ্নে তিনি বলেন, আমরা সবকিছু দেখব। কারও কোনো গাফিলতি ছিল কি না, এটি বের করব। কোন জায়গা থেকে ফেল করেছে, এটি আমরা দেখব। আগে দেখে নিই, তারপর সিদ্ধান্ত নিয়ে ব্যবস্থা নেব।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এই শান্তিপ্রিয় এলাকায়, যেখানে শান্তির সুবাতাস বইত, এখানে অশান্তি সেটি আমরা চাই না। আমরা অবশ্যই এর কারণ, কারা ঘটনা ঘটিয়েছে, কাদের সহযোগিতা ছিল সবগুলো আমরা বের করে আইনগত ব্যবস্থা নেব।

সাংবাদিকের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এখানে নিরাপত্তাবাহিনী রয়েছে। তারা তাদের মতো ব্যবস্থা নেবে। আমরা আর কোনো জিনিসকে আন চ্যালেঞ্জ হতে দেব না। উৎসটা কোথায়, সবগুলো আমরা বের করব।

আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, ডাকাতির মূল উদ্দেশ্য ছিল বোধ হয় অর্থ সংগ্রহ করা, এখন পর্যন্ত আমরা যা মনে করছি। আমরা সব কিছুই দেখব। অস্ত্র সহকারে এবং পোশাক সহকারে এখানে ঢুকবে; আমাদের নিরাপত্তা বাহিনী বসে থাকবে এটাও কাম্য নয়। যা করার নিরাপত্তা বাহিনী এখন সেটা করবে। আমরা এ ব্যাপারে কঠোর অবস্থানে যাব। আমরা কোনো ক্রমেই আইন-শৃঙ্খলা ভঙ্গ করতে আর দেব না। এই শান্তি প্রিয় এলাকায়, যেখানে শান্তির সুবাতাস সব সময় বইতো, এখানে অশান্তি হোক এটা আমরা চাই না। আমরা অবশ্যই এর কারণ, কারা করেছে, কাদের সহযোগিতা ছিল সবগুলো আমরা বের করব এবং আমরা আইনানুগ ব্যবস্থা নেব।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সফরসঙ্গী হিসেবে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা, বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি, বিজিবি প্রধান মেজর জেনারেল মো. আশরাফুজ্জামান সিদ্দিকী, আনসার ভিডিপির মহাপরিচালক মেজর জেনারেল একেএম আমিনুল হক, পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার মনিরুল ইসলামসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

পার্বত্য অঞ্চলের বিচ্ছিন্নতাবাদী সশস্ত্র সংগঠন কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্টের (কেএনএফ) সম্প্রতি ব্যাংক ডাকাতি, অস্ত্র লুট, থানায় আক্রমণের ঘটনায় উত্তপ্ত বান্দরবান। এমন অবস্থায় সার্বিক পরিস্থিতি পরিদর্শন করতে বেলা ১১টার দিকে বান্দরবানের রুমায় পৌঁছান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

মন্ত্রীর সফরসূচি অনুযায়ী, বেলা সাড়ে ১২টায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সার্কিট হাউজে জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপারসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক মিলিত হবেন। এদিনই বিকেলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বান্দরবান থেকে ঢাকার পথে রওনা হবেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরো সংবাদ

আবহাওয়া