মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ০৮:৫১ অপরাহ্ন

প্রথম স্ত্রী পালিয়ে যাওয়ায় দুধ দিয়ে গোসল করে দ্বিতীয় বিয়ে

রাজবাড়ী জেলা প্রতিনিধি
আপডেট : বুধবার, ২০ মার্চ, ২০২৪
প্রথম স্ত্রী পালিয়ে যাওয়ায় দুধ দিয়ে গোসল করে দ্বিতীয় বিয়ে

রাজবাড়ী জেলা প্রতিনিধি : 

প্রেম করে বিয়ে, ৬ বছর সংসার করার পর সেই স্ত্রী নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার নিয়ে পালিয়েছেন অন্যের সঙ্গে। এই ক্ষোভে নিজেকে শুদ্ধ করতে এক মণ দুধ দিয়ে গোসল করে দ্বিতীয় বিয়ে করেছেন মামুন মোল্লা নামের এক লেপ-তোষক ব্যবসায়ী।

এমনই এক ব্যতিক্রমী ঘটনা ঘটেছে রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দির নারুয়া ইউনিয়নে শোলাবাড়ী গ্রামে। মামুন মোল্লা ওই গ্রামের মৃত মাজেদ মোল্লার ছেলে।

মঙ্গলবার (১৯ মার্চ) সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মামুনের দুধ দিয়ে গোসল করার একটি ভিডিও ছড়িয়ে পড়লে মুহূর্তে ভিডিওটি ভাইরাল হয়। এর আগে গত রোববার (১৭ মার্চ) রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলায় নারুয়া ইউনিয়নের শোলাবাড়ী গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে।

ভিডিওটিতে দেখা যায়, এক যুবক বাড়ির উঠানে টুলের ওপর বসে আছেন। পাশে রয়েছে বালতিভর্তি দুধ। সেখানে থাকা নারীরা মগ দিয়ে তার মাথা ও শরীরে দুধ ঢেলে গোসল করাচ্ছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, মামুন মোল্লা স্থানীয় একটি বাজারে লেপ-তোষকের ব্যবসা করেন। প্রায় ৬ বছর আগে মামুন মোল্লা ভালোবেসে পরিবারের সম্মতিতে বিয়ে করেন বালিয়াকান্দির নবাবপুরের বালিয়াচরের শাম্মী আক্তারকে। বিয়ের পর তাদের সংসার সুখেই চলছিল। হঠাৎ মামুনের স্ত্রী শাম্মী তার বাবার বাড়ি এলাকার তপন আলী নামে এক যুবকের সঙ্গে পরকীয়া প্রেমে জড়িয়ে পড়েন। এক পর্যায়ে ২ মার্চ শাম্মী তার স্বামী-সংসার ছেড়ে পরকীয়া প্রেমিকের সঙ্গে পালিয়ে যান। পরে মামুন গত রোববার দুধ দিয়ে গোসল করে দ্বিতীয় বিয়ে করেন।

স্থানীয়রা জানান, মামুন মেল্লা স্থানীয় একটি বাজারে ব্যবসা করতেন। মামুন মোল্লা ও তার স্ত্রী শাম্মী আক্তার ৭ বছর আগে দুজন দু’জনকে ভালোবেসে পারিবারিকভাবে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। বিবাহের পর তাদের বেশ সুখের সংসার ছিল। কিন্তু হঠাৎ করেই মামুনের স্ত্রী শাম্মী তার বাবার বাড়ি এলাকার আমোদ আলীর ছেলে তপন আলীর সঙ্গে পরকীয়া প্রেমে জড়িয়ে পড়েন। শাম্মীর বাবার বাড়ি একই উপজেলার নবাবপুর ইউনিয়নের বালিয়াচর গ্রামে। পরকীয়া সম্পর্কে জড়িয়ে চলতি মাসের ২ তারিখ মামুনের স্ত্রী চলে যায়।

মামুন মোল্লা জানান, ভালোবেসে ৬ বছর আগে বিয়ে করে সংসার করছিলেন। কিন্তু স্ত্রী তার সঙ্গে বেঈমানি করে অন্যের হাত ধরে চলে গেছে। তাদের সংসারে কোনো অভাব-অনটন বা দুঃখ-কষ্ট ছিলে না। চলে যাওয়ার সময় সে নগদ ৫০ হাজার টাকা ও ২ ভরি স্বর্ণ নিয়ে গেছে। আসলে তিনি তাকে চিনতে ভুল করেছিলেন। যার কারণে দুধ দিয়ে গোসল করে নিজেকে শুদ্ধ করে দ্বিতীয় বিয়ে করেছেন। তবে এই ঘটনার দৃষ্টান্তমূলক বিচার হওয়া উচিত বলে তিনি মনে করেন।

মামুন মোল্লার প্রতিবেশী নারুয়া ইউনিয়ন পরিষদের মেম্বার জনাব আলী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, মামুন তার প্রতিবেশী। মামুনের স্ত্রী শাম্মী পরকীয়া করে পালিয়েছে। কিন্তু তারা প্রেম করে বিয়ে করেছিল এবং ৬ বছর সংসারও করেছে। স্ত্রী পালিয়ে যাওয়ায় গত রোববার মামুন দ্বিতীয় বিয়ে করেছে এবং বিয়ের আগে মামুন দুধ দিয়ে গোসল করেছে।

এ বিষয়ে নারুয়া ইউনিয়ন পরিষদের ৯নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য জনাব বলেন, মামুন মোল্লার বাড়ি আমার বাড়ির পাশে। সে ভালোবেসে সাত বছর আগে নবাবপুর ইউনিয়নের শাম্মী আক্তার নামের এক মেয়েকে বিয়ে করেছিলো। কিন্তু তার স্ত্রী পরকীয়া করে আরেকজনের সঙ্গে চলে গেছে। তাই মামুন গত রোববার এক মণ দুধ দিয়ে গোসল করে আবার দ্বিতীয় বিয়ে করেছে।

নারুয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জহুরুল ইসলাম বলেন, বিষয়টি আমার জানা নেই। খোঁজ নিয়ে দেখতে হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরো সংবাদ

আবহাওয়া