রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ১০:৪৯ অপরাহ্ন

নতুন শিক্ষনীতিতে দেশ বিরোধী কারিকুলাম এনে দেশের শিক্ষা ব্যবস্থাকে ভেঙে দিচ্ছে সরকার : রিজভী

নিজস্ব প্রতিবেদক
আপডেট : বৃহস্পতিবার, ২৫ জানুয়ারি, ২০২৪
নতুন শিক্ষনীতিতে দেশ বিরোধী কারিকুলাম এনে দেশের শিক্ষা ব্যবস্থাকে ভেঙে দিচ্ছে সরকার : রিজভী

নিজস্ব প্রতিবেদক : 

সরকার নতুন শিক্ষা কারিকুলাম দিয়ে জাতিগত অস্তিত্ব ভুলিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করছে এমন অভিযোগ করে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, পরিকল্পিতভাবে দেশের শিক্ষা ব্যবস্থা ধ্বংসের দিকে এগিয়ে চলেছে। নতুন শিক্ষনীতিতে দেশ বিরোধী কারিকুলাম এনে দেশের শিক্ষা ব্যবস্থাকে ভেঙে দিচ্ছে সরকার। আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এসে জনগণকে তাবেদার করতে শিক্ষা ব্যবস্থা সাজাচ্ছে।

বৃহস্পতিবার (২৫ জানুয়ারি) নয়া পল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয় অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

রিজভী বলেন, দেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব পরনির্ভরশীল করার ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে এবং গোটা জাতির মেরুদণ্ড ভেঙে দেওয়ার অসৎ রাজনৈতিক উদ্দেশ্যেই শিক্ষা কারিকুলাম চালু করা হচ্ছে। এই শিক্ষা সিলেবাস জাতি ঘৃণাভরে প্রত্যাখ্যান করেছে।

রিজভীর অভিযোগ, আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতা দখলের পর শিক্ষাঙ্গনে সন্ত্রাস নৈরাজ্যের ধারাবাহিকতায় প্রশ্নফাঁস ও পরীক্ষায় নকলের সুযোগ করে দেওয়ার ছিল বিগত বছরগুলোতে সবচেয়ে ‘টক অব দ্য ডিকেড’। এবার যোগ হলো নতুন শিক্ষানীতি ও দেশের সংস্কৃতি ও মূল্যবোধ বিরোধী কারিকুলাম। কথায় আছে কোনো জাতিকে ধ্বংস করার জন্য পারমাণবিক হামলা কিংবা ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপের দরকার নেই। বরং সেই জাতির শিক্ষা ব্যবস্থা ধ্বংস করলেই হবে।

নতুন শিক্ষানীতি ও কারিকুলামের মাধ্যমে বিজ্ঞান শিক্ষাকে সংকোচন করা হয়েছে বলে মন্তব্য করে রিজভী বলেন, ধর্ম শিক্ষার নৈতিক মূল্যবোধ সৃষ্টির প্রয়াসকে চূড়ান্তভাবে উপেক্ষা করা হয়েছে। স্বাস্থ্য সুরক্ষা শিক্ষার নামে যৌন শিক্ষা চালু করে কিশোর মনকে বিকৃত করার চেষ্টা চালানো হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ফিজিক্স-কেমিস্ট্রি-বায়োলজি মিলিয়ে একটা মিক্সার থাকবে ৯ম-১০ম শ্রেণিতে সবার পড়ার জন্য, আর কোনো অপশন থাকবে না। কিন্তু ফিজিক্স, কেমিস্ট্রি, বায়োলজির মতো পিওর সায়েন্স মাধ্যমিক লেভেল থেকে তুলে দিয়ে কিশোর-তরুণদের বিজ্ঞানমনস্ক হওয়ার পথে অন্তরায় তৈরি করা হবে। এই কারিকুলাম বাস্তবায়নের ফলে বৈশ্বিক মানদণ্ডে পেশাভিত্তিক জ্ঞান, বিজ্ঞান, প্রযুক্তি ও চিকিৎসা বিজ্ঞানে বাংলাদেশ ভূমিকা রাখতে ব্যর্থ হবে।

অনলাইন নিঃসন্দেহে প্রযুক্তির একটি বড় অবদান উল্লেখ করে রিজভী বলেন, কিন্তু প্রযুক্তির ওপর অতি নির্ভরতা প্রযুক্তি দানবে পরিণত হতে পারে। কোমলপ্রাণ শিশু-কিশোররা বিভিন্ন ডিভাইস (মোবাইল, ট্যাব) ব্যবহার করে তথ্য সংগ্রহ করতে গিয়ে নিষিদ্ধ গেমস, অনলাইন জুয়া, ফেসবুক ও পর্ন সাইটসহ নানা অপকর্মের দিকে ধাবিত হচ্ছে। তৈরি হয়েছে কিশোর গ্যাং, যারা ছিনতাই, খুনে জড়িত হয়ে পড়ছে।

ফ্যাসিস্ট একদলীয় সরকার বিজ্ঞানবিরোধী, নীতি-আদর্শহীন, অনৈতিক ও মেধাহীন যে শিক্ষা কারিকুলাম চালু করেছে বিএনপি ঘৃণাভরে তা প্রত্যাখ্যান করেছে বলে জানান রিজভী।
সরকারের অভিনন্দনের সমালোচনা করে তিনি বলেন, দেশে যে ডামি সরকার গঠন করা হয়েছে তা দেশের জন্য লজ্জার। ডামি সরকারকে যারা সমর্থন করছে তারা নিজেদেরই আত্মপ্রবঞ্চনা করছে।

দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব আরও বলেন, বিএনপি নেতাকর্মীদের নিয়ে ভয়ংকর বাণিজ্য করছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। টাকা না দিলে জামিন হলেও বের হতে পারছে না নেতাকর্মীরা। বিরোধী দলকে স্তব্ধ করতে চাচ্ছে প্রভুদের বলে বলিয়ান হয়ে।’

ড. হাছান মাহমুদকে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর দায়িত্ব দেওয়ার সমালোচনা করে রিজভী বলেন, ‘উদ্ভট অবান্তর কথায় পারঙ্গম হাছান মাহমুদ এজন্যই তাকে প্রমোশন হিসেবে পররাষ্ট্রমন্ত্রী করা হয়েছে।

চার দিনে সারা দেশে গ্রেপ্তার ৭ জন, মামলা দুটি, আসামি দেড়শোর বেশি। জন্মান্ধদেরও ককটেল বিস্ফোরণের গায়েবি মামলায় আসামি করা হচ্ছে। করিৎকর্মা পুলিশ সাগর রুনির প্রতিবেদন দিতে পারে না অথচ বিরোধী দলের নেতাকর্মীদের সাজা দিতে আদালত পরিচালনা করে।

রিজভী আরও বলেন, গত ২৮ অক্টোবর নোয়াখালীর সেনবাগে পুলিশের ওপর কথিত ককটেল হামলার গায়েবি মামলা আসামি করা হয়েছে ৫৫ বছর বয়সী জন্মান্ধ আলমগীর হোসেন মিলনকে। অবৈধ ক্ষমতার মোহে এতটাই অন্ধ, একজন জন্মান্ধ ব্যক্তিকেও আসামি করা হয়েছে। মিলন হাইকোর্টে উপস্থিত হয়ে আগাম জামিন নিয়েছে। প্রশ্ন হচ্ছে, একজন জন্মান্ধ ব্যক্তির পক্ষে পুলিশের ওপর ককটেল বিস্ফোরণ সম্ভব? বিচারক কি এই প্রশ্নের জবাব জানতে চেয়েছে? বন্য বিচার আজ এমন পর্যায়ে পৌঁছেছে যে, একজন জন্মান্ধ ব্যক্তিও পুলিশের নিষ্ঠুরতা থেকে রেহাই পায়নি।

কারাগারে বিএনপির নেতাকর্মীদের ওপর অমানবিক নির্যাতন চলছে দাবি করেন রিজভী। বলেন, মামলায় জামিন না পেয়ে তীব্র হাড়কাঁপানো শীতে লাখও বিএনপিসহ বিরোধীদলীয় নেতাকর্মী মানবেতর অবস্থায় পলাতক জীবন যাপন করছে।

সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা জয়নুল আবদিন ফারুক, আবুল খায়ের ভুইয়া, মহানগর দক্ষিণ আরিফা সুলতানা রুমা, নাদিয়া পাঠান পাপন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরো সংবাদ

আবহাওয়া